বৃহস্পতিবার, ২৯ জুলাই ২০২১, ০১:৪৫ অপরাহ্ন
নোটিশ
যে সব জেলা, উপজেলায় প্রতিনিধি নেই সেখানে প্রতিনিধি নিয়োগ দেয়া হবে। বায়োডাটা সহ নিউজ পাঠান। Email: [email protected]

বোয়ালমারীতে আগুনে পোড়া বিধবা মহিলা ও দরিদ্র পরিবারের মাঝে   নগদ অর্থ সহায়তা 

সনত চক বর্ত্তী ,ফরিদপুর জেলা প্রতিনিধি
Update : শুক্রবার, ৭ মে, ২০২১, ১০:০১ পূর্বাহ্ন

সনত চক্র বর্ত্তী  ফরিদপুর : ফরিদপুর জেলার বোয়ালমারী উপজেলা করোনাভাইরাস সংক্রমণের প্রভাবে পাল্টে গেছে প্রতিটি মানুষের জীবনমান। বিশ্বের অন্যান্য দেশের মতো বাংলাদেশের চিত্র তার ব্যতিক্রম নয়। জাতির এই সংকটময় মুহূর্তে প্রাদুর্ভাব শুরু থেকে মানবতার সেবায় অবিরাম ছুটে চলেছেন সৌদি প্রবাসী আরশাফুজ্জামান মিলন ও তার সেচ্ছাসেবী বাহিনী ।

করোনা শুরু হওয়ার পর থেকে দরিদ্র, দিনমজুর, সুবিধা  বঞ্চিত ও অসহায়দের পরিবারের মুখে হাসি  ফুটিয়ে তুলতে বিভিন্ন ভাবে সাহায্য করেছেন এবং  প্রতিনিয়িত খাদ্য সহায়তা ও উপহার সামগ্রী নিয়ে তার প্রতিনিধি বিভিন্ন অসহায় দরিদ্র মানুষের মাঝে ছুটে  বেড়াচ্ছেন ময়না ইউনিয়ন  ৩৩ টি বিভিন্ন  অসহায় বিভিন্ন মানুষের মাঝে ।

স্থানীয়দের মতে সৌদি প্রবাসী আরশাফুজ্জামান মিলন শুধু মানবিক ব্যক্তি না যেনো এক মানবতার ফেরিওয়ালা। তিনি ইতিমধ্যে ১০ নং ময়না ইউনিয়ন  দরিদ্র পরিবার  মাঝে ব্যক্তিগত তহবিল থেকে খাদ্য সহায়তা, উপহার সামগ্রী ও নগদ অর্থ সহায়তা প্রদান করেন । গত কয়েক দিন যাবৎ মিলনের কর্মী বাহিনী বর্নীচর,গৌড়িপুর,ঈছাখালি,হাঁটু ভাঙা মিরের চর গ্রামের অতি দরিদ্র মানুষের মাঝে নগদ টাকা প্রদান করেন।

কোনো ধরণের জনসমাগম ছাড়াই বাড়ি বাড়ি গিয়ে নীরবে কর্মীর মাধ্যমে ময়না ইউনিয়ন  প্রতিটি পাড়া-মহল্লায় ও অলি-গলিতে এই সহায়তায় পৌঁছে দিয়েছেন। এসময় একটি ছবিও পর্যন্ত ধারণ করেননি।

সর্বশেষ   শুক্রবার ( ৭ মে) সকালে হরিতাডাঙ্গা এক বিধবার বাড়ি আগুনে পুড়ে যাওয়ার নগদ ৫০০০ টাকা সহায়তা করেন।

মানবিক সহায়তা হিসেবে গরিব, অসহায়, দরিদ্র, অস্বচ্ছল, এতিম, প্রতিবন্ধী, ক্যান্সার আক্রান্ত ও স্কুলসহ বিভিন্ন ধর্মীয় প্রতিষ্ঠান মসজিদ-মাদ্রাসা এবং এতিমখানা ছাড়াও সামাজিক নানা প্রতিষ্ঠানে প্রচার বিমুখ ছাড়া অসহায়দের বাড়ি বাড়ি গিয়ে নিরবে আর্থিক সহায়তা ও অনুদান প্রদান করেন।

আরশাফুজ্জামান মিলন  বলেন, করোনাভাইরাসের প্রভাবে  কর্মহীন দিনমুজুর  পরিবারকে সহায়তা হিসাবে মানবতার সেবায় যতটুকু পারছি  আমার লোক দিয়ে  মানবকল্যাণে কাজ করছি। মানবতার সেবায় কাউকে না কাউকে এগিয়ে আসতেই হবে। আর এলাকার অসহায় মানুষের জন্য কাজ করে এক অন্যরকম তৃপ্তি খুঁজে পাই।

তিনি আরো বলেন, ভোগের মাঝে সুখ নয় ত্যাগই হলো প্রকৃত সুখ। করোনার এই পরিস্থিতিতে বাইরে থাকি বলে পরিবার অনেক দুশ্চিন্তায় থাকে। এর মাঝেও দেশের মানুষের কল্যাণে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে আমার সেচ্ছাসেবী বাহিনী  কাজ করছে। যেসব মধ্যবিত্ত ও নিম্ন মধবিত্ত পরিবার নিজেদের অস্বচ্ছল অবস্থা প্রকাশে সংকোচবোধ করছে এ ধরণের পরিবারকে খুঁজে বের করে বাড়ি বাড়ি গিয়ে তাদের খাদ্য সহায়তা ও আর্থিক অনুদান প্রদান করা হয়েছে।

তিনি এর চেয়ে আরো বড় পরিসরে এলাকার মানুষের জন্য কাজ করতে পারেন তার জন্য ময়না ইউনিয়ন  কাছে দোয়া ও আন্তরিক সহযোগিতা কামনা করেন।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
Theme Created By Uttoron Host