সোমবার, ০৮ অগাস্ট ২০২২, ০৫:২৪ অপরাহ্ন
নোটিশ
যে সব জেলা, উপজেলায় প্রতিনিধি নেই সেখানে প্রতিনিধি নিয়োগ দেয়া হবে। বায়োডাটা সহ নিউজ পাঠান। Email: [email protected]

করোনার মুখে খাওয়ার ওষুধ আনলো বেক্সিমকো ফার্মা

Reporter Name
Update : বৃহস্পতিবার, ৩০ ডিসেম্বর, ২০২১, ৭:১২ অপরাহ্ন

নিউজ ডেস্ক:  করোনাভাইরাসের মুখে খাওয়ার ওষুধ দেশের বাজারে আনলো দেশের অন্যতম প্রধান জেনেরিক ওষুধ এবং কাঁচামাল প্রস্তুতকারক বেক্সিমকো ফার্মাসিউটিক্যালস লি. (বেক্সিমকো ফার্মা)। ওষুধটি ঢাকাসহ সারা দেশে পাওয়া যাচ্ছে। সম্প্রতি ফাইজারের করোনা (কোভিড-১৯) চিকিৎসার জন্য প্যাক্সলোভিড (নির্মাট্রেলভির ও রিটোনাভির মুখে খাওয়া ওষুধসহ প্যাকেজ/একত্রে প্যাকেজ) ওষুধটির বিশ্বের প্রথম জেনেরিক সংস্করণ নিয়ে আসার ঘোষণা দেয় বেক্সিমকো ফার্মা।

এর আগে প্যাক্সলোভিড গত ২২শে ডিসেম্বর ইউএস ফুড অ্যান্ড ড্রাগ এডমিনিস্ট্রেশনের জরুরি ব্যবহারের অনুমোদন পায়। পাশাপাশি বাংলাদেশের ঔষধ প্রশাসন অধিদপ্তর গত ৩০শে ডিসেম্বরে করোনার এই মুখে খাওয়ার ওষুধ প্রাপ্তবয়স্ক এবং ১২ বছরের ঊর্ধ্বে শিশুদের মৃদু এবং মাঝারি লক্ষণযুক্ত কোভিড-১৯ রোগের চিকিৎসার জন্য জরুরি ব্যবহারের অনুমোদন দেয়।

জানা গেছে, নতুন আবিস্কৃত এই অ্যান্টিভাইরাল ওষুধটি উচ্চ ঝুঁকি সম্পন্ন রোগীদের হাসপাতালে ভর্তি বা মৃত্যুর ঝুঁকি প্রায় ৯০% পর্যন্ত হ্রাস করে। সম্প্রতি প্রকাশিত একটি ল্যাব ডাটায় আরও দেখা যায় যে, এই ওষুধটি দ্রুত সংক্রমণকারী ওমিক্রন ভ্যারিয়েন্টের বিরুদ্ধে কার্যকর। বেক্সিমকো ফার্মা এই ওষুধটি বেক্সোভিড নামে বাজারজাত করবে।

নির্মাট্রেলভির সার্স-কোভ-২ এর প্রতিলিপির জন্য প্রয়োজনীয় এনজাইমকে বাধা দেয় এবং রিটোনাভির আমাদের শরীরে নির্মাট্রেলভিরের ভাঙনকে কমিয়ে দেয়। যার ফলস্বরূপ নির্মাট্রেলভির দীর্ঘ সময় রক্তে উচ্চমাত্রায় থাকে। কোভিড-১৯ চিকিৎসার জন্য দুইটি নির্মাট্রেলভির এবং একটি রিটোনাভির একসঙ্গে দিনে দুইবার করে মোট ৫ দিন খেতে হবে। শুধুমাত্র চিকিৎসকের পরামর্শ অনুযায়ী বেক্সোভিড নিতে হবে এবং কোভিড-১৯ শনাক্ত হওয়ার সঙ্গে সঙ্গেই, লক্ষণ প্রকাশের পাঁচ দিনের ভিতরে চিকিৎসা শুরু করতে হবে।

বেক্সিমকো ফার্মাসিউটিক্যালসের ব্যবস্থাপনা পরিচালক নাজমুল হাসান এমপি বলেন, কোভিড-১৯ চিকিৎসার জন্য এর আগে বিশ্বের প্রথম রেমডেসিভির এবং মলনুপিরাভিরের জেনেরিক সংস্করণ নিয়ে আসার পর এই যুগান্তকারী ওষুধটি নিয়ে আসতে পেরে আমরা অত্যন্ত আনন্দিত। দ্রততম সময়ে সাধ্যের মধ্যে চিকিৎসা সেবা সহজলভ্য করার প্রতিশ্রুতি আমরা আবারও রেখেছি। দ্রত সংক্রমণকারী ওমিক্রনের বিরুদ্ধে কার্যকারিতা থাকায় আমরা বিশ্বাস করি যে, করোনা মহামারি মোকাবিলায় বেক্সোভিড শক্তিশালী ভূমিকা পালন করবে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

More News Of This Category
Theme Created By Uttoron Host