মঙ্গলবার, ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০১:২৪ অপরাহ্ন
নোটিশ
যে সব জেলা, উপজেলায় প্রতিনিধি নেই সেখানে প্রতিনিধি নিয়োগ দেয়া হবে। বায়োডাটা সহ নিউজ পাঠান। Email: newssonarbangla@gmail.com

পত্নীতলায় উন্নত জাতের ব্লাক রাইচ ধান কর্তনের উদ্বোধন

শামীম আক্তার চৌধুরী প্রিন্স, পত্নীতলা
Update : সোমবার, ৩ মে, ২০২১, ১:২৩ অপরাহ্ন

শামীম আক্তার চৌধুরী প্রিন্স, পত্নীতলা (নওগাঁ) প্রতিনিধিঃ পত্নীতলায় কৃষি বিভাগের আয়োজনে উন্নত জাতের ব্লাক রাইচ ধান কর্তনের উদ্বোধন করা হয়েছে।

সোমবার উপজেলার ঘোষনগর ইউপির খিরশীন গ্রামের তজিবর রহমানের জমিতে ও পটিচরা ইউপির গাহন গ্রামের কৃষক আফজাল হোসেনের জমিতে উন্নত জাতের ব্লাক রাইচ জাতের অধিক প্রোটিন সমৃদ্ধ ধান কেটে উদ্বোধন করেন কৃষি অধিদপ্তর নওগাঁর উপ-পরিচালক সামসুল ওয়াদুদ।

এসময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা প্রকাশ চন্দ্র সরকার, কৃষি সম্প্রসারণ কর্মকর্তা মোহায়মিনুল ইসলাম, উদ্ভিদ সংরক্ষন কর্মকর্তা মশিউর রহমান, উপজেলা দুর্নীতি প্রতিরোধ কমিটির সভাপতি ও পত্নীতলা প্রেসক্লাব সভাপতি আলহাজ্ব বুলবুল চৌধুরী, প্রো-বোনো ল’ইয়ার্স এসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ এর এ্যাসিস্টেন্ট পাবলিকেশন সেক্রেটারী ও বঙ্গবন্ধু আইন ছাত্র পরিষদ কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের সাংগঠনিক সম্পাদক চৌধুরী তানভীর আহম্মেদ, কৃষক তজিবর রহমান, আফজাল হোসেন প্রমূখ।

কৃষি বিভাগ জানায়, উন্নত জাতের অধিক প্রোটিন সমৃদ্ধ ও ডায়েবেটিক রোগীর জন্য উপকারী স্বাস্থ্য সম্মত ব্লাক রাইচ ধান আমাদের এই অঞ্চলে এই প্রথম লাগানো হয়। এটি মূলত চীনের একটি উন্নত জাতের ধান। এর উৎপাদন লক্ষমাত্রা ধরা হয়েছে বিঘা প্রতি ২৫/৩০মন।

পত্নীতলায় গোল্ডেন ক্রাউন ও সাগর কিং তরমুজ আবাদ করে এলাকায় সাড়া

শামীম আক্তার চৌধুরী প্রিন্স, পত্নীতলা (নওগাঁ) প্রতিনিধিঃ পত্নীতলায় উপজেলার ইছাপুর গ্রামের যুবক মিজানুর রহমান (৩৫) গোল্ডেন ক্রাউন ও সাগর কিং জাতের তরমুজের আবাদ করে এলাকায় ব্যাপক সাড়া ফেলেছে।

সরজমিনে দেখাগেছে, উপজেলার ইছাপুর গ্রামের যুবক মিজানুর রহমান তার সোয়া দুই বিঘা জমিতে উন্নত জাতের গোল্ডেন ক্রাউন ও সাগর কিং তরমুজ প্রায় দেড় মাস পূর্বে ৩হাজার ৫শ চারা গাছ রোপন করেন। পলি মাটিতে লাগানো চারা গাছ গুলো দিন দিন বড় হতে থাকলে তা ফল আসার আগ মহুর্তে বাঁশের মাচায় উঠিয়ে দেয়া হয়েছে। হলুদ রং বেষ্টিত এসব উন্নত জাতের তরমুজ গুলো সুন্দর ভাবে মাঁচার নিচে ঝুলছে।

কৃষক মিজানুর রহমান জানান, তার এই ফল গুলির এখন বয়স ৪৬ দিন। এরই মধ্যে ফল গুলোতে নেটিং ব্যাগ ব্যবহার করা হয়েছে। এই ফল গুলি ৬০ দিনের মাথায় প্রায় ৩/৪ কেজি ওজন হলে পরিপক্ক হবে এবং তা বাজার জাত করার উপযোগী হবে। সে আশাবাদী এবারে তার এই ক্ষেত থেকে প্রায় ৬হাজার ফল পাওয়া যাবে। যার প্রতি পিচের ৬০/৭০ টাকা কেজি দরে বাজার মূল্য হবে ১৮০/২২০ টাকা।

সোমবার বিকেলে তার এই তরমুজ ক্ষেত পরি দর্শন করেন কৃষি অধিদপ্তর নওগাঁর উপ-পরিচালক সামসুল ওয়াদুদ। এসময় তিনি বলেন গোল্ডেন ক্রাউন ও সাগর কিং জাতের তরমুজ আবাদ দেশে ভালো সাড়া ফেলেছে। এই ক্ষেতটি পলি মাটিতে হওয়ায় এর ফলন ভালো হবে। কৃষক মিজানুরের এই তরমুজ চাষের সাফল্য দেখে অন্যান্য কৃষকরাও এগিয়ে আসলে কৃষি বিভাগ মিজানুরের মতো তাদেরকেও সার্বিক সহযোগীতা প্রদান করবেন বলে তিনি আশ্বাস প্রদান করেন।

এসময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা প্রকাশ চন্দ্র সরকার, কৃষি সম্প্রসারণ কর্মকর্তা মোহায়মিনুল ইসলাম, উদ্ভিদ সংরক্ষন কর্মকর্তা মশিউর রহমান, উপজেলা দুর্নীতি প্রতিরোধ কমিটির সভাপতি ও পত্নীতলা প্রেসক্লাব সভাপতি আলহাজ্ব বুলবুল চৌধুরী, প্রো-বোনো ল’ইয়ার্স এসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ এর এ্যাসিস্টেন্ট পাবলিকেশন সেক্রেটারী ও বঙ্গবন্ধু আইন ছাত্র পরিষদ কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের সাংগঠনিক সম্পাদক চৌধুরী তানভীর আহম্মেদ, কৃষক মিজানুর রহমান, আফজাল হোসেন সহ অন্যান্য কৃষক প্রমূখ।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
Theme Created By Uttoron Host