Templates by BIGtheme NET
ব্রেকিং নিউজ ❯
Home / জেলার খবর / ঝিনাইদহে গ্যাস সংযোগ সময়ের ব্যাপার

ঝিনাইদহে গ্যাস সংযোগ সময়ের ব্যাপার

ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃ ঝিনাইদহসহ গোটা দক্ষিনাঞ্চলের বাসাবাড়ি ও শিল্পকারখানায় গ্যাস সংযোগের বিষয়টি ঝুলে আছে। মন্ত্রনালয়ের সিদ্ধামেত্মর অপেক্ষায় রয়েছে বাসাবাড়ি ও শিল্পকারখানায় গ্যাস সংযোগ প্রদান বিষয়টি। কবে নাগাদ গ্যাস সংযোগ পক্রিয়া শুরু হবে তা বলেতে পারছে না গ্যাস ট্রান্সমিশন কোম্পানী লিমিটেড (জিটিসিএল) কর্তৃপক্ষ। এদিকে গ্যাস লাইন স্থাপন, মিটার স্টেশন ও অবকাঠামো নির্মান শেষ হলেও তা এখনো সরকারের কাছে হসত্মামত্মর করা হয়নি। ইতিমধ্যে ঝিনাইদহের পাইপ লাইনে গ্যাস সংযোগ দেওয়া হয়েছে। ভেড়ামারা থেকে খুলনা পর্যমত্ম গ্যাস পৌছে গেছে গত অর্থ বছরের জুন মাসে। প্যাট্রোল ম্যানরা লাইন রক্ষনাবেক্ষনের কাজও শুরু করে দিয়েছেন। কিন্তু বাসাবাড়ি ও শিল্পকারখানায় গ্যাস সংযোগের অপেক্ষায় দিন গুনছে ঝিনাইদহের মানুষ। গ্যাস ট্রান্সমিশন কোম্পানী লিমিটেডের ঝিনাইদহ অঞ্চলে কর্মরত কর্মকর্তাদের সুত্রে এ সব তথ্য জানা গেছে। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ওই কর্মকর্তা জানান, দেশের বিভিন্ন স্থানে যে ভাবে মানুষ গ্যাস সুবিধা পাচ্ছে, ঝিনাইদহবাসিও সেই সুবিধা ভোগ করবেন। এ জন্য ঝিনাইদহ, যশোর ও কুষ্টিয়াসহ চারটি স্থানে মিটার স্টেশন এবং ডিপো তৈরী করা হয়েছে। গ্যাস ট্রান্সমিশন কোম্পানী লিমিটেড সুত্রে জানা গেছে ২০০৯ সালে গোটা দক্ষিানাঞ্চলে গ্যাস লাইন স্থাপনের প্রসত্মাব পাশ হয়। ২০১১ সাল থেকে এ অঞ্চলে জমি অধিগ্রহন শুরু হয়। জমি অধিগ্রহন ও ক্ষতিগ্রস্থ জমির মালিকদের টাকা দেওয়ার কাজও শেষ করা হয়েছে। ঝিনাইদহ জেলা প্রশাসনের জমি অধিগ্রহন শাখা সুত্রে জানা গেছে, কালীগঞ্জ, ঝিনাইদহ ও শৈলকুপার ৫২টি মৌজা থেকে মোট সর্বমোট ২০৮ একর জমি অধিগ্রহন করা হয়েছে। ঝিনাইদহ জেলার উপর দিয়ে ৫২ কিলোমিটার গ্যাস লাইন তৈরী করা হয়েছে। ২ হাজার ৬’শ ৩৪ জন জমির মালিককে ক্ষতিপুরণ বাবদ দেওয়া হয়েছে ৫০ কোটি ১৬ লাখ টাকা। খুলনা ভেড়ামারা অঞ্চলে প্রকল্পে কর্মরত কেও এ সম্পর্কে তথ্য দিতে নারাজ। তাদের কথা গ্যাস লাইন তৈরী শেষ। এখন লাইন হসত্মামত্মর করে গ্যাস সংযোগ প্রদানের সিদ্ধামত্ম গ্রহন করবে সরকার। এদিকে ঝিনাইদহবাসির দীর্ঘদিনের দাবী ছিল গ্যাস সংযোগের। সেই কাংক্ষিত স্বপ্ন এখন পুরনের পথে। কিন্তু বিভিন্ন শ্রেনী পেশার মানুষের সাথে কথা বলে জানা গেছে তারা এ সম্পর্কে এখনো পুরোপুরি অজ্ঞ। ঝিনাইদহ শহরে যে গ্যাস এসেছে তাই এখনো কেও জানেন না। সুশাসনের জন্য নাগরিক সুজন এর জেলা সভাপতি মানবাধিকার কর্মী সাংবাদিক আমিনুর রহমান টুকু জানান, আমরা অগ্রাধিকার ভিত্তিতে ঝিনাইদহের শিল্প কারকাখানায় গ্যাস প্রদানের বিষয়টি অনেক আগেই তুলেছি। তিনি বলেন এ জন্য আমরা খুলনা বিভাগীয় কমিশনার ও ঝিনাইদহ জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে লিখিত ভাবে প্রধানমন্ত্রীর কাছে গ্যাস সংযোগের আবেদন করেছি। তিনি বলেন, শিল্পকারখানায় গ্যাস সংযোগ দিলে অনগ্রসর ঝিনাইদহের অর্থনীতি আরো শক্তিশালী হবে।

Social Media Sharing

ăn dặm kiểu NhậtResponsive WordPress Themenhà cấp 4 nông thônthời trang trẻ emgiày cao gótshop giày nữdownload wordpress pluginsmẫu biệt thự đẹpepichouseáo sơ mi nữhouse beautiful